রবিবার, ০৫ ডিসেম্বর ২০২১, ০৩:০২ অপরাহ্ন
শিরোনাম
শিরোনাম
সামাজিক সংগ্রাম পরিষদ’ এর সদস্য সচিব পদ থেকে জাহাঙ্গীর কবির তনুকে অব্যাহতি। ভোট কেন্দ্র দখলে বাধা দিলে রক্তের বন্যা বইবে! দৈনিক মাধুকর পত্রিকা বর্জনের ঘোষণা বর্ণাঢ্য আয়োজনে অনুষ্ঠিত হলো প্রেসক্লাব গাইবান্ধার অভিষেক ও প্রীতিভোজ ৮১ মসজিদে সিলিং ফ্যান দিলেন জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান গাইবান্ধায় পুলিশে চাকরি পাইয়ে দিতে প্রতারণা: সাংবাদিকসহ গ্রেপ্তার-২ গাইবান্ধায় ভোট গণনাকে কেন্দ্র করে একাধিক বিদ্যালয় ভাংচুর ইউপি সদস্য হত্যা: হাজারো জনতা, ছাত্র-শিক্ষকের সড়ক অবরোধ গৃহকর্মীর পাওনা টাকার নিউজ করায় চেয়ারম্যান প্রার্থীর সংবাদ সম্মেলন গাইবান্ধায় আওয়ামীলীগ প্রার্থী ও তার লোকজনের বিরুদ্ধে স্বতন্ত্র প্রার্থীর অফিস ভাংচুরের অভিযোগ

গাইবান্ধায় ভোট গণনাকে কেন্দ্র করে একাধিক বিদ্যালয় ভাংচুর

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ / ৩৮ বার পঠিত
সময় : শনিবার, ১৩ নভেম্বর, ২০২১, ১:১১ অপরাহ্ণ

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

গাইবান্ধা সদরের ১৩ ইউনিয়নে সকাল ৮ টা থেকে বিকেল ৪ টা পর্যন্ত সুষ্ঠু ও সুন্দরভাবে ভোট গ্রহন সম্পন্ন হলেও কেন্দ্রে কেন্দ্রে মেম্বর প্রার্থীদের ভোট গণনাকে কেন্দ্র করে একাধিক প্রাথমিক বিদ্যালয়ে চেয়ার,টেবিল, গ্রিল, আলমারীসহ আসবাবপত্র ভাংচুরের ঘটনা ঘটেছে।

বৃহস্পতিবার ভোট গ্রহন শেষে পরাজিত মেম্বর প্রার্থীদের উসকানিতে কিছু দুর্বৃত্ত এ ঘটনা ঘটায়। পরে অতিরিক্ত পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে দুর্বৃত্তদের ছত্রভঙ্গ করে দেয়।

ক্ষতিগ্রস্থ স্কুলগুলো হলো, মালিবাড়ি ইউনিয়নের ৬ নং ওয়ার্ডের কিসামত মালিবাড়ী পূর্বপাড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়, লক্ষীপুর ইউনিয়নের ৮ নং ওয়ার্ডের মালিবাড়ি রোরহানিয়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়,গিদারী ইউনিয়নের ৫ নং ওয়ার্ডের বালিয়ারছড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়সহ বেশ কিছু স্কুল।

কিসমত মালিবাড়ী পূর্বপাড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক শান্তনা শাহা বলেন, নির্বাচন পরবর্তী সময়ে আমার বিদ্যালয়ের দুটি ভবনে ব্যাপক ভাংচুর করা হয়েছে। নতুন বিল্ডিং এর জানালার গ্লাস, চেয়ার, টেবিল, ভেঙ্গে ফেলা হয়েছে এছাড়াও বঙ্গবন্ধুর ছবিসহ ডেকোরেশন নষ্ট করে দেয়া হয়েছে। এছাড়াও পুরাতন বিল্ডিং এর ইটসহ পরিত্যাক্ত কিছু মালামাল রের করে নিয়ে গেছে।

লক্ষীপুর ইউনিয়নের মালিবাড়ি রোরহানিয়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক শাহজাদী হাবিবা সুলতানা পলাশ বলেন, লক্ষীপুর ইউনিয়নে ইভিএম পদ্ধতিতে ভোট গ্রহন সম্পন্ন হলেও কিছু দুর্বৃত্ত আমার বিদ্যালয়ের বাউন্ডারি বেড়া ক্ষতিগ্রস্থ করেছে। একটি বালতি ও কিছু জিনিসপত্র চুরি হয়েছে।

এছাড়াও গিদারী ইউনিয়নের ৫ নং ওয়ার্ডের কমলার বাজার দক্ষিন গিদারী বালিয়ারছড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে দুই মেম্বর প্রার্থীর ভোট গণনাকে কেন্দ্র করে প্রিজাইডিং অফিসার, সহকারি সহকারি প্রিজাইডিং অফিসারসহ পুলিং অফিসারদের টানা তিন ঘন্টা অবরুদ্ধ করে রাখে উত্তেজিত জনতা। পরে পুলিশ এসে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রন করে তাদের উদ্ধার করে।

এ ব্যাপারে সদর উপজেলা নির্বাহী অফিসার রাফিউল আলম বলেন, কয়েকটি বিদ্যালয় ক্ষতিগ্রস্থ হওয়ার খবর শুনেছি। বিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ লিখিত আবেদন করলে নির্বাচন কমিশনকে বিষয়টি অবগত করবো। এছাড়াও যদি কোন চিহ্নিত ব্যক্তি স্কুল ভাংচুরের সাথে জড়িত থাকে তদন্ত করে তাদের বিরুদ্ধেও ব্যবস্থা নেয়া হবে।


  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরও খবর

ফেসুবকে আমরা

এক ক্লিকে বিভাগের খবর